গুগল সার্চ র‍্যাঙ্কিং কিভাবে কাজ করে। গুগলে সাইট Rank করানোর সঠিক উপায় ২০২২

হেলো বন্ধুরা, সকলেই কেমন আছেন? আসাকরি আপনারা সকলেই ভালো আছেন। গত আর্টিকেল সার্চ ইঞ্জিন কিভাবে কাজ করে সেই বিষয়ে আলোচনা করা হয়েছিল। যারা পড়েন নি তারা পড়ে আসতে পারেন। 

• সার্চ ইঞ্জিনগুলো কিভাবে কাজ করে

ত সার্চ ইঞ্জিন কিভাবে কাজ করে এই বিষয়ে আপনার ধারনা থাকলে আজকের আর্টিকেলের টপিকটি বুঝা আপনার জন্য অনেক সহজ হবে। ত আজকের আর্টিকেলে আলোচনা করা হবে, গুগল সার্চ র‍্যাঙ্কিং কিভাবে কাজ করে এই সম্পর্কে। গুগল সার্চ র‍্যাঙ্কিং যেভাবে কাজ করে এ বিষয়টি যদি আপনি জানতে পারেন বা ধারনা থাকে তাহলে আপনার সাইটের কন্টেন্ট গুলোকে গুগলের প্রথম পেজে নিয়ে আসা আপনার জন্য অনেক সহজ হবে।

পেজ সূচিপত্রঃ

• গুগল সার্চ র‍্যাঙ্কিং কিভাবে কাজ করে

• কনটেন্ট প্রাসঙ্গিকতা

• কন্টেন্টের মান

• কন্টেন্টের নতুনত্ব

• অর্গানিক ক্লিক থ্রু রেট

• ওয়েবসাইট বিষয় ও ক্যাটাগরি

• ব্যাকলিংক

• ওয়েবসাইট স্পিড

গুগল সার্চ র‍্যাঙ্কিং কিভাবে কাজ করে 

সার্চ ইঞ্জিনগুলো ফলাফল নির্বাচনের ক্ষেত্রে যে পদ্বতি অবলম্বন করে তা কেও ১০০% নিশ্চিত সহকারে বলতে পারবে না। তবে মার্কেটার এবং এসইও এক্সপার্টরা দীর্ঘ সময় পরিক্ষা - নিরিক্ষা এবং পর্যবেক্ষণের মাধ্যমে সার্চ র‍্যাঙ্কিংয়ের বেশ কিছু ধাপ সম্পর্কে জানতে পেরেছে। যেমনঃ

কনটেন্ট প্রাসঙ্গিকতা

একজন User যে ধরনের তথ্য খুঁজছে, আপনার কন্টেন্ট সে তথ্য সঠিক এবং নির্ভুলভাবে প্রদান করতে পারবে কিনা, তা সার্চ ইঞ্জিনের কাছে অতি গুরুত্বপূর্ণ। যেমনঃ আপনি অনলাইনে একটি কম্পিউটারের ব্যবসা করেন। বিভিন্ন ব্রেন্ডের কম্পিউটারের ভালো - খা'রাপ দিক নিয়ে আপনার বেশ কিছু কন্টেন্ট পাবলিশ করা আছে। এখন গুগলে কোনো লোক যদি HP laptop vs Asus laptop নিয়ে সার্চ করলো, মানে সেই ব্যাক্তিটি দুটি ব্রেন্ডের কম্পিউটারের মধ্যে পার্থক্য জানতে চেয়েছে।  ত এ বিষয়ে যদি আপনার অপটিমাইজড এবং তথ্য বহুল কন্টেন্ট থাকে তাহলে সার্চ ইঞ্জিন তাকে প্রাসঙ্গিক মনে করে ফলাফলে দেখাতে পারবে।

কন্টেন্ট মান

আপনার কন্টেন্ট শুধু প্রাসঙ্গিক হলেই চলবে না কন্টেন্ট মানসম্মত বা কোয়াটিফুল হতে হবে। কারণ কোয়ালিটিফুল কন্টেন্ট ছাড়া কখনোই আপনি গুগলের প্রথম পেজে র‍্যাঙ্ক করাতে পারবেন না। 

উদাহরণ দিয়ে বুঝানোর চেস্টা করছি:

• আপনার আর্টিকেলে HP laptop এবং Asus laptop এর সকল গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো উল্লেখ থাকতে হবে।

• দুটি কম্পিউটারের ফিচারগুলো সম্পর্কে user কে সহজ ভাষায় বিস্তারিত বুঝাতে হবে।

• দুটি কম্পিউটারের দামের বিপরীতে কেমন সার্ভিস প্রদান করবে সে বিষয়ে উল্লেখ থাকতে হবে।

• কম্পিউটারগুলো কেনার সময় মানুষ যে বিষয়ে সবচেয়ে বেশি নজর দিবে তা সঠিকভাবে উল্লেখ থাকতে হবে, কোনো বিষয় বাদ দেয়া যাবে না।

মূল কথা হচ্ছে আপনার কন্টেন্ট হতে হবে কোয়ালিটিফুল। তা না হলে কখনোই র‍্যাঙ্ক করানো সম্ভব নয়। 

কন্টেন্ট নতুনত্ব

ইন্টারনেটে একই ধরনের কন্টেন্ট হাজার হাজার রয়েছে। তাই আপনাকে নতুন নতুন বিষয় সম্পর্কে কন্টেন্ট লিখতে হবে যা ইন্টারনেট কম রয়েছে এবং মানুষ সার্চ করে। কন্টেন্ট রাইটিং এবং কিওয়ার্ড রিসার্চ সম্পর্কে পরবর্তী আর্টিকেলে আলোচনা করা হবে।

অর্গানিক ক্লিক থ্রু রেট

মোট ক্লিক ÷ মোট ইমপ্রেশন × ১০০ = অর্গানিক ক্লিক থ্রু রেট। 

উদাহরণ দিয়ে বুঝানোর চেস্টা করছি: ধরা যাক (buy mouse) লিখে সার্চ করার পর একটি সাইটের প্রোডাক্ট ৫০ হাজার বার দেখানো হলো অর্গানিক ফলাফলে। কিন্তুু ক্লিক পড়লো ৩০ হাজার বার। তাহলে পেজটির ক্লিক থ্রু রেট হবে ৬০%। 

মূল কথা হচ্ছে, আপনার কন্টেন্টের ক্লিক থ্রু রেট যত বেশি হবে, আপনার কন্টেন্ট র‍্যাঙ্ক হবার সম্ভাবনা তত বাড়বে। আবার ক্লিক থ্রু রেট কম হলে কন্টেন্ট দিন দিন ডাওন হবার সম্ভাবনা থাকবে। তাই ক্লিক থ্রু রেট বাড়ানোর জন্য আপনার কন্টেন্ট এর উপর ফোকাস দিতে হবে। 

ওয়েবসাইট বিষয় ও ক্যাটাগরি

 আপনি চেস্টা করবেন সবসময় এক নিশ বা বিষয় নিয়ে কাজ করার জন্য। যেমনঃ আপনার সাইট যদি হয় টেক বিষয় নিয়ে তাহলে সেই সাইটে কখনোই রেসিপি  বিষয়ক কন্টেন্ট পাবলিশ করবেন না।

উদাহরণ দিয়ে বুঝানোর চেস্ট করছি: আপনার যদি চোখের সম'স্যা হয় তাহলে কখনোই আপনি দাঁতের ডাক্তারের কাছে যাবেন না। মূলকথা হচ্ছে বিষয় ভিত্তিক তথ্য সম'স্যা সমাধানে অতি গুরুত্বপূর্ণ। 

আপনার সাইটে যদি নিয়মিত টেক বিষয় নিয়ে কোয়ালিটিফুল কন্টেন্ট পাবলিশ করেন তাহলে  কেও যদি টেক বিষয়ক কোনো কিছু সার্চ করে তাহলে আপনার সাইট র‍্যাঙ্কিং করার সম্ভাবনা অনেক বেশি।

ব্যাকলিংক

এই বিষয়টি ও গুগল ভালোভাবে নজর দেয়। তাই চেস্টা করবেন আপনার সাইটের ব্যাকলিংক বাড়ানোর জন্য। আবার ব্যাকলিংক নেওয়ার ক্ষেত্রে কিছু বিষয় মাথায় রাখতে হবে। যেমন: কখনোই spam করা যাবে না। Gest post বা গুগলের নিয়ম মেনে সঠিকভাবে ব্যাকলিংক তৈরি করতে হবে।

ওয়েবসাইট স্পিড

আপনার সাইট যদি লোড হতে সময় বেশি নেয় তাহলে ইউজার বি'রক্ত হয়ে আপনার সাইট থেকে চলে যেতে পারে। তাই সাইট স্পিড অপটিমাইজের উপর ও আপনাকে নজর দিতে হবে।

উপরোক্ত বিষয়গুলো মাথায় রেখে কন্টেন্ট পাবলিশ করলে আসাকরি আপনার কন্টেন্ট গুলো গুললের প্রথম পেজে  Rank করানো সম্ভব এবং গুগল সার্চ র‍্যাঙ্কিং উপরোক্ত বিষয়গুলো সহ আরো কিছু বিষয় মেনে কন্টেন্ট গুলোকে র‍্যাঙ্কিং দিয়ে থাকে।

Post a Comment (0)
Previous Post Next Post